হরিপুরে সাংবাদিক, পুলিশ প্রশংসায়

সংবাদ প্রকাশের পর সেই বৃদ্ধা পেল পাকা ঘর

0
283

ঠাকুরগাঁওয়ের হরিপুর উপজেলায় সাংবাদিক ও পুলিশ এখন প্রশংসায় ভাসছে।
গত ১৬ অক্টোবর (দৈনিক হরিপুর) প্রত্রিকায় প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে বলা হয়, হরিপুরে ছেলের হাতে নির্যাতনের শিকার বৃদ্ধা মা।
এমন এক প্রতিবেদন প্রকাশের পর হরিপুর থানা পুলিশের তৎপরতায় অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আওরঙ্গ জেব এর নেতৃত্বে এক দল পুলিশ নির্যাতনের শিকার বৃদ্ধা মায়ের সন্তানদের আটক করে থানায় নিয়ে আসে।
এরপর ‘মা, সমরত বিবি সাংবাদিক ও পুলিশকে জানায় আটক সন্তানদের ছেড়ে দিতে। সাংবাদিক ও হরিপুর থানা পুলিশের উপস্থিত্বে ‘মা, সমরত বিবি‘র কাছে ক্ষমা প্রর্থানা করে এবং তাদের মায়ের মাটির ও টিনের চালার ঘরটি, দ্রুত ইট দিয়ে সুন্দরভাবে পাকা করে দেওয়ার ব্যবস্থা করেবেন।

গতকাল হরিপুর থানা চত্তরে আপোষ মিমাংসা হওয়ার জন্য একটি সালিশ বসে। সেখানে সাংবাদিক, পুলিশসহ সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন চেয়ারম্যান উপস্থিত ছিলেন।

এবিষয়ে সাংবাদিক জসিম উদ্দীন ইতি জানান, মুঠোফোনের মাধ্যমে খবর পেয়ে ঘটনার স্থলে গিয়ে তথ্য সংগ্রহ করে সংবাদ প্রকাশ করা হয়েছে। সমাজের কিছু নির্যাতিত মানুষের পাশে থেকে, সেই নির্যাতিত ব্যক্তিকে প্রসাশন মুখী করাটা হচ্ছে সাংবাদিকের ধর্ম। যেহেতু দেশে আইনি ব্যবস্থা চালু আছে। ধ্যনবাদ হরিপুর থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আওরঙ্গ জেবকে।

হরিপুর থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আওরঙ্গ জেব বলেন, শুরুতে ধ্যনবাদ জানায় সাংবাদিক জসিম উদ্দীন ইতিকে। এমন একটি সাংবাদ প্রকাশ করেছে যে পুলিশ প্রসাশনের দৃষ্টি নির্যাতিত মায়ের দিকে তবে নিজেদের মাঝে আপোষ মিমাংসা করে নিয়েছে। পরবর্তীতে যদি ছেলেরা কোনো সমস্যা করে তাহলে মামলা হবে।

তিনি আরো বলেন, পুলিশ এখন জনগনের কাছাকাছি অবস্থান করছে, যে কোনো সমস্যা জনগন পুলিশকে জানাতে পারে, বাংলাদেশ পুলিশ জনগনকে আইনি সেবা দিতে সবসময় প্রস্তুত।
সাংবাদিক ও পুলিশ কে ধ্যনবাদ জানিয়েছেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ জিয়াউল হাসান মুকুল।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে