নিরাপদ আবাসন নিশ্চিতে সরকারি-বেসরকারি সমন্বিত উদ্যোগের আহ্বান

0
152

সমাজের সব স্তরের মানুষের জন্য নিরাপদ ও বাসযোগ্য আবাসন নিশ্চিত করতে সংশ্লিষ্ট সরকারি-বেসরকারি সংস্থাগুলোর সমন্বিত উদ্যোগ অব্যাহত রাখার আহ্বান জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

বিশ্ব বসতি দিবস উপলক্ষে দেওয়া এক বাণীতে এ আহ্বান জানান তিনি।

এবছর বিশ্ব বসতি দিবসের প্রতিপাদ্য ‘সবার জন্য আবাসন: ভবিষ্যতের উন্নত নগর’। এবারের বিশ্ব বসতি দিবসের প্রতিপাদ্য যথার্থ হয়েছে বলে মন্তব্য করেন রাষ্ট্রপতি।

রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ বলেন, আবাসন মানুষের মৌলিক চাহিদার অন্যতম। এর সঙ্গে মানুষের রুচি, সংস্কৃতি, আবহাওয়া, ভৌগলিক অবস্থানসহ নানা উপাদান জড়িত থাকে। আবাসন মানুষের আকাঙ্ক্ষার সঙ্গে মানানসই, আধুনিক ও বিজ্ঞানসম্মত হওয়া আবশ্যক।

উন্নত দেশের মতো বাংলাদেশেও গ্রামকে উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির কেন্দ্রীয় দর্শন হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে জানিয়ে রাষ্ট্রপতি বলেন, ‘নগর ও গ্রামের বৈষম্য দূরীকরণে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অঙ্গীকার বাস্তবায়নে সরকার প্রত্যেক গ্রামে শহরের সুযোগ-সুবিধা পৌঁছে দেওয়ার কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছে। ’

তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ প্রেক্ষিত পরিকল্পনা (২০১০-২০২১): রূপকল্প ২০২১’ এ আবাসন ও অন্য নাগরিক সেবার চাহিদা পূরণের লক্ষ্যে নগর উন্নয়ন কর্মসূচির রূপরেখা প্রণয়ন করা হয়েছে। সপ্তম পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনায় পরিবেশ, মৌলিক পরিষেবা ও নগরায়নের স্থানিক মাত্রা মোকাবিলার মাধ্যমে আবাসনের যোগান নিশ্চিতকরণের উপর জোর দেওয়া হয়েছে।

আবাসনখাতে সরকারের গৃহীত পদক্ষেপ উন্নততর নগরায়ণে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রেখে চলছে বলে মন্তব্য করেন রাষ্ট্রপতি।

পরিকল্পিত নগরায়ন নিশ্চিত করার তাগিদ দিয়ে আবদুল হামিদ বলেন, বাংলাদেশে বিশেষ করে ঢাকা শহরে বিপুল সংখ্যক মানুষ বস্তিসহ অপরিকল্পিত ও অনানুষ্ঠানিক জনবসতিতে বসবাস করে। এ বিপুল জনগোষ্ঠী বিভিন্ন নাগরিক সুযোগ-সুবিধার বাইরে থাকে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে